অনলাইন বাংলা সংবাদ পত্র

লাগাম টেনে ধরা যাচ্ছে না ডিম ও সবজির বাজার

সত্যের সৈনিক অনলাইনটানা ভারী বর্ষণের কারণে লাগাম টেনে ধরা যাচ্ছে না ডিম ও সবজির বাজার। ডিমের ডজন ৯০ টাকা থেকে একলাফে বেড়ে হয়েছে ১২০ টাকা। হালি ৪৮ টাকা দরে ও প্রতি পিস ১২ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। আর তাতেই সপ্তাহখানেক আগের ক্রেতাদের স্বস্তি এখন রূপ নিয়েছে অসন্তোষে।

শুক্রবার বাজার ঘুরে এসব তথ্য পাওয়া গেছে।

এদিকে, প্রতিটি সবজি কেজিতে বেড়েছে ১০ থেকে ২০ টাকা। কাঁচামরিচ ২৫০ গ্রাম বিক্রি হচ্ছে ৩০-৩৫ টাকায়। গত সপ্তাহে ছিলো ১৫-২০ টাকা। সপ্তাহের ব্যবধানে এই কাঁচামরিচের দাম বেড়ে প্রায় দ্বিগুণ হলো।

এছাড়া টমেটো বিক্রি হচ্ছে ১৪০-১৬০ টাকা দরে; গাজর ১০০-১২০ টাকা; বেগুন ৫০-৬০ টাকা; বরবটি ৫০-৬০ টাকা; শসা ১০০ টাকা; করলা ৪০ -৫০ টাকা দামে বিক্রি হচ্ছে। এছাড়া, পটল ৪০-৫০ টাকা; পেঁপে ২০-২৫ টাকা; লতি ৬০ টাকা; আলু ২৫ টাকা; চাল কুমড়া প্রতি পিস ৩০- ৩৫ টাকা; লাউ আকার ভেদে প্রতি পিস ৪০-৫০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

অন্যদিকে, লেবু ২০-৩০ টাকা হালি; পুঁই শাক প্রতি আঁটি ৩০ টাকা; লাল শাক ২০ টাকা; পালং শাক ৩০ টাকা; মুলা শাক ২৫ টাকা আঁটি বিক্রি হচ্ছে।

রুই মাছ বাজার ভেদে বিক্রি হচ্ছে- ৩০০-৪০০ টাকা কেজি; পাবদা মাছ ৫০০-৬০০ টাকা; শিং মাছ ৪০০-৭০০ টাকা; তেলাপিয়া ১৮০-২২০ টাকা; পাঙাস ১২০-১৫০ টাকা; সরপুঁটি ১৫০-২০০ টাকা; চাষের কৈ ১৬০-১৮০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে।

ব্রয়লার মুরগির কেজি প্রতি ১৩০-১৪০ টাকা বিক্রি হচ্ছে। লাল লেয়ার মুরগি বিক্রি হচ্ছে- ২২০-২৪০ টাকা কেজি। গরুর মাংস ৪৮০-৫৫০ টাকা ও খাসির মাংস ৬৫০-৭৫০ টাকা কেজির দরে বিক্রি হচ্ছে।

 

১৩ জুলাই ২০১৯ / সত্যের সৈনিক / এমএসআইএস

Leave A Reply

Your email address will not be published.