অনলাইন বাংলা সংবাদ পত্র

নিয়োগ পরীক্ষায় চরম অব্যবস্থাপনা

সত্যের সৈনিক অনলাইন : রাষ্ট্রায়ত্ত তিন ব্যাংকসহ আট ব্যাংকের নিয়োগ পরীক্ষায় বিভিন্ন অনিয়ম ও অব্যবস্থাপনার অভিযোগ পাওয়া গেছে। গতকাল শুক্রবার বিকেলে ওই পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। নির্ধারিত সময়ে পরীক্ষা শুরু না হওয়া এবং সিট নিয়ে অব্যবস্থাপনাসহ নানা অনিয়মের অভিযোগ করেছেন পরীক্ষার্থীরা। মিরপুরের একটি কেন্দ্রে হাতাহাতি ও মারামারির ঘটনা ঘটেছে। ওই কেন্দ্রের পরীক্ষা স্থগিত করা হয়েছে।

পরীক্ষার সময় নির্ধারিত ছিল বেলা সাড়ে তিনটা। দনিয়া এ কে স্কুল অ্যান্ড কলেজ কেন্দ্রে পরীক্ষার নির্ধারিত সময়ের ১০ মিনিট পর প্রশ্নপত্র এসে পৌঁছায়। এ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের দুটি ভবন। পুরোনো ভবন থেকে নতুন ভবনের দূরত্ব প্রায় এক কিলোমিটার।

ওই কেন্দ্রের পরীক্ষার্থীরা জানান, বাংলাদেশ ব্যাংকের ওয়েবসাইটে শুধু কেন্দ্রের নাম ও রুম নম্বর উল্লেখ ছিল। কিন্তু পরীক্ষার সিট কার কোন ভবনে পড়েছে, তার উল্লেখ ছিল না। আরিফুর রহমান নামের এক পরীক্ষার্থী বলেন, কার সিট কোথায় পড়েছে, তাঁর উল্লেখ নেই। যে যাঁর মতো বসে পরীক্ষা দিয়েছেন। মিরপুরের শাহ আলী মহিলা কলেজ কেন্দ্রে মারামারি হয়েছে। সেখানে বিক্ষুব্ধ পরীক্ষার্থীরা মাজার রোড অবরোধ করে রাখেন।

আসনবিন্যাস না থাকা ও প্রশ্ন দেরি করে আসায় মিরপুরের হযরত শাহ আলী মহিলা কলেজের সামনে বিকেলে বিক্ষোভ করেন আট ব্যাংকের নিয়োগ প্রত্যাশীরা। তবে বাংলাদেশ ব্যাংকের ব্যাংকার্স সিলেকশন কমিটির সদস্যসচিব ও বাংলাদেশ ব্যাংকের মহাব্যবস্থাপক মোশাররফ হোসেন খান শুধু একটি কেন্দ্রে সমস্যার কথা বলেন। তিনি বলেন, মিরপুরের শাহ আলী মহিলা কলেজ কেন্দ্রে পাঁচ হাজারের বেশি পরীক্ষার্থী অংশ নেন। কিন্তু আসন ব্যবস্থাপনায় কিছুটা সমস্যা হয়েছিল। এই কেন্দ্রের পরীক্ষা স্থগিত করা হয়েছে। ২০ জানুয়ারি শনিবার এ পরীক্ষা নেওয়া হবে। শাহ আলী মহিলা কলেজ ও বাংলা কলেজে ওই কেন্দ্রের পরীক্ষা হবে দুই শিফটে।

গত বছর রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন সোনালী, রূপালী ও জনতা ব্যাংকের নিয়োগ বিজ্ঞপ্তির ভিত্তিতে নিয়োগ পরীক্ষাসহ পরবর্তী কার্যক্রম পরিচালনা না করতে হাইকোর্ট নির্দেশ দিয়েছিলেন। গত বৃহস্পতিবার হাইকোর্ট সে আদেশ স্থগিত করেন। এই আদেশের ফলে ওই তিন ব্যাংকসহ আট ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানের নিয়োগ পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তার ১ হাজার ৬৬৩টি শূন্য পদে ২ লাখ ১৩ হাজার ৫২৫ জন পরীক্ষার্থীর অংশ নেওয়ার কথা

১৩ জানুয়ারি ২০১৮/সত্যের সৈনিক/তুহিন রানা

Leave A Reply

Your email address will not be published.