অনলাইন বাংলা সংবাদ পত্র

প্রায়শ্চিত্ত -প্রবীর কুমার চৌধুরী

ঘুনধরা খিলান ,ভাঙ্গা নাটমঞ্চ ,
ধ্বংস দেউড়ির ইতিবৃত্ত ,
তিন মহলার অত্যাচার আর আর্ত চিৎ্কারে-
ভরানো হবে ইতিহাসের পাতা।
দেয়ালে টাঙ্গানো শত অত্যাচারের করুন মর্মগাঁথা ,
গঙ্গার বুকে শবযাত্রা,দম্ভ আর শোষনের আকর্ষণীয় কাহিনী ।

গুমঘরে রাত্রীনিশীথে দ্রৌপদীর  বস্ত্রহরণ –
সাত থেকে সত্তর নিস্তারহীন বোবা কান্না,
রক্তাক্ত রাজপথে প্রতিবাদের মিছিল ,ধরনা,
কৃষ্ণশূন্য মহাভারত এখন ভবিতব্য ।
হাসিশূন্য বাধ্যতায় মেনকার  আবরণশূন্য দেহে –
অমাবশ্যা ঢেকে দেয় চাঁদ,কলঙ্ক অভিশাপ হয়ে-
কালো অতীত বাঁধা  থাকবে সিংদুয়ারে ,
মৃতপ্রায় সুখের স্মৃতি  চাঁদোয়ায় ঢাকা কফিনে ।

ভালোবাসাগুলো অকালে ঝড়ে যায় ,মরে যায়,
অন্তরে  ক্ষুদিত পাষাণ ,এখন শুধুই সিঁদুরের হাহাকার ,
রাতের অন্ধকারে ,গুমঘরে সতীর মুখে অসতীর স্টিকার লাগানোর কারবারি-
বাঈমহলে লোভের ঘুঙুর খুশীর ফোয়ারা ছোটায়,
এখন প্রতিহিংসার প্রতিদ্বন্দ্বিতায় অশৌচ হানা দেয় রাজপ্রাসাদে ।
ভবের হাটে বিদ্রোহের মিছিলে অভিমান কথা বলে ,
এ যুগের বংশধর নিরুপায় রক্তঋণ মাথায়্ ।

রৌদ্ররথে সময়ের অবসান ,গোধূলি ফিকে ,ফিকে ,
দূষিত রাতে অতৃপ্ত আত্মার বিক্ষুব্ধ মিছিলে প্রতিবাদ ।
জেগে ওঠে যত সাধারণে ছাই চাপা অসাধারণ –
প্রভাতে হোক কলরবে অধিকারের আন্দোলন ।
শতাব্দীর দেহাবশেষ বয়ে বয়ে দিনান্তের ক্লান্ত অবসান,
এখন জীবনের রঙ্গমঞ্চে সততার প্রহসন ,
তবে কি অসহায় আগামীদিন বাধ্যতায় পূর্বপুরুষের পাপস্খলন। ।

২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮/ সত্যের সৈনিক/হালিমা খাতুন

Leave A Reply

Your email address will not be published.