অনলাইন বাংলা সংবাদ পত্র

লামায় আনসার ব্যাটালিয়ান সদস্য কর্তৃক ওসি পরিচয় দিয়ে হুমকি

বান্দরবান প্রতিনিধি :  বান্দরবানের লামা উপজেলায় এক আনসার সদস্য কর্তৃক মামলার স্বাক্ষীকে ওসি পরিচয় দিয়ে মোবাইল ফোনের মাধ্যমে হুমকি দেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এই বিষয়ে ভুক্তভোগী আমেনা বেগম (৫০) গত শুক্রবার (২৯ জুন) লামা থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি অর্ন্তভুক্ত করেন। যাহার নম্বর-জিডি ১১৫৩, তারিখ-২৯/০৬/২০১৮ইং। ডায়েরী সূত্রে জানা যায়, লামা উপজেলার রূপসীপাড়া ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ড এলাকা উত্তর দরদরী নয়াপাড়ার বাসিন্দা আমেনা বেগম (৫০)। সে লামা সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেড আদালতে জায়গাজমি সংক্রান্ত বিষয়ে চলমান একটি মামলার স্বাক্ষী।
ঘটনার দিন শুক্রবার (২৯ জুন) সন্ধ্যা ৭.৫৩ঘটিকার সময় আমেনা বেগমের ব্যবহৃত মোবাইল ফোনে একজন অজ্ঞাত পরিচয় ব্যক্তি যাহার মোবাইল ফোন নম্বর ০১৮৬৯৫৫৫৫১৯ থেকে ফোন আসে। মোবাইল রিসিভ করতে নিজেকে লামা থানার অফিসার ইনচার্জ পরিচয় দিয়ে মামলার স্বাক্ষী কেন দিয়েছে এবং এই বিষয়ে কি জানে সে বিষয়ে জানতে চায়। এসময় আমেনা বেগমের সন্দেহ হলে তিনি কোন ধরণের উত্তর দিতে অপারগতা জানায়। এতে উত্তেজিত হয়ে আমেনা বেগম-কে বিভিন্ন ধরণের হুমকি প্রদর্শনসহ সাক্ষ্য দিলে বিভিন্ন মামলায় জড়িয়ে দিয়ে হয়রানি করবে বলে হুমকি দেয় ঐ অজ্ঞাত ব্যক্তি।
পরে আমেনা বেগম হতভিম্ব হয়ে তাৎক্ষনিকভাবে এলাকার কয়েকজন লোক নিয়ে থানায় যায়। থানার অফিসার ইনচার্জকে বিষয়টি জানালে মোবাইল নাম্বারটি যাচাই-বাছাই করে দেখেন। এটি লামা থানার কোন অফিসার কিংবা পুলিশ সদস্যের নয় বলে নিশ্চিত করেন ভুক্তভোগীকে। একইদিন রাতেই আমেনা বেগম অজ্ঞাত পরিচয় এই মোবাইল নাম্বারটির বিষয়ে লামা থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি হিসেবে অর্ন্তভুক্তি করেন। পরে ঘটনাটি এলাকায় জানাজানি হলে এলাকাবাসী নিশ্চিত করেন অজ্ঞাত পরিচয় মোবাইল নাম্বারটি লামা চম্পাতলী ১৭ আনসার ব্যাটালিয়ান ক্যাম্পের আনসার সদস্য সিন্দু কুমার বড়ুয়ার। এই বিষয়ে উল্লেখিত নাম্বারে ফোন দিয়ে জানতে চাইলে সিন্দু কুমার বড়ুয়া জানান, মামলার স্বাক্ষীকে আমি ফোন দিয়ে মামলার বিষয়ে জানতে চেয়েছি তবে তাকে আমি হুমকি দেইনি।
ভুক্তভোগী আমেনা বেগম মিথ্যা পরিচয়ে মোবাইল ফোনে হুমকি প্রদানের জন্য আনসার সদস্যে সিন্দু কুমার বড়ুয়ার কঠোর শাস্তি দাবী করেন।

৪ জুলাই ২০১৮ / সত্যের সৈনিক / মো: শফিকুল ইসলাম সোহেল

Leave A Reply

Your email address will not be published.